শুক্রবার, ৮ ডিসেম্বর, ২০১৭

বটবৃক্ষ

'যে সময়ের কথা বলছি তখন সোনাপুর আর তামাবিলের মাঝে এরকম এক বিশাল বটবৃক্ষ ছিল', এই বলে বুড়ো নাম্বি থেমে তার শ্রোতাদের দিকে তাকালো, তার আঙ্গুল বটবৃক্ষের দিকে।

সোমবার, ৯ অক্টোবর, ২০১৭

জ্যাক নিকলসনের ওয়েস্টার্ন সিনেমা



জ্যাক নিকলসনকে আমরা প্রধানত তার চায়নাটাউন, ওয়ান ফ্লিউ ওভার দ্য কুক্কুস নেস্ট এবং দ্য শাইনিং ছবির জন্য চিনি। এছাড়াও আরও কিছু চলচ্চিত্র আছে যা তাকে খ্যাতি এনে দিয়েছে, তিনবার অস্কার পুরস্কারে ভূষিত করেছে এবং প্রায় অর্ধশতাব্দী ধরে অভিনয়জগতে সম্মানের সাথে অবস্থান করছেন। এই দীর্ঘ সময়ে তিনি মাত্র পাঁচটি ওয়েস্টার্ন চলচ্চিত্রে অভিনয় করেছেন যার সবগুলোই তার ক্যারিয়ারের প্রথমদিকে। এমনকি নিকলসন একটি ওয়েস্টার্ন সিনেমার কাহিনী রচনাও করেছেন, কিন্তু এই ছবিগুলো সাধারণত আলোচনায় গুরুত্ব পায় না। এর প্রধান কারন সম্ভবত অন্যান্য চলচ্চিত্রগুলোর উজ্জ্বল সাফল্য। এছাড়াও গুরুত্বপূর্ণ আরেকটি কারণ হল তার অভিনীত ওয়েস্টার্ন চলচ্চিত্রগুলোর ব্যবসায়িক ব্যর্থতা অথবা যথেষ্ট পরিমান সাফল্য না পাওয়া। তা সত্ত্বেও, জ্যাক নিকলসন রচিত এবং অভিনীত ওয়েস্টার্ন সিনেমাগুলো সম্পর্কে সামান্য আলোকপাত করা যেতে পারে - ছবিগুলোর গল্পের মৌলিকত্ব ও অভিনবত্ব, ছবিতে জ্যাক নিকলসনের অভিনয় এবং সার্বিক বিচারে উপভোগ্যতা নিয়ে।

রবিবার, ১৬ এপ্রিল, ২০১৭

শাকিব-অপুর বিয়ে : সব প্রশ্নের উত্তর মিলেনি

গেল সপ্তাহে বাংলাদেশের বিনোদন জগতে সম্ভবত এ বছরের সবচেয়ে আলোচিত ঘটনাটি মঞ্চস্থ হল। বাচ্চা কোলে নিয়ে অপু বিশ্বাস টিভি চ্যানেল লাইভে হাজির হয়ে জানালেন - এই সন্তানটির পিতা শাকিব খান এবং অপু বিশ্বাস তার মা। তারা বিয়ে করেছেন প্রায় সাত-আট বছর আগে। মুহুর্তের মধ্যে সারাদেশের এক নম্বর ইস্যুতে পরিণত হয় ঘটনাটি। শাকিব খান বিয়ে-সন্তানের ঘটনা অস্বীকার করেননি, তবে অপু বিশ্বাস তাকে অসম্মান করেছে এই অভিযোগে তিনি জানিয়েছিলেন, পুত্রের দায়িত্ব গ্রহণ করলেও অপুর দায়িত্ব গ্রহণ করবেন না। অবশ্য একদিন পার হওয়ার আগেই তিনি এ সিদ্ধান্ত থেকে সরে আসেন, আরেকটি টিভি চ্যানেলের লাইভে উপস্থিত হয়ে ভুল স্বীকার করেন এবং সারাদেশের জনগণকে স্বস্তি এনে দেন। তবে, ওই অনুষ্ঠানেও থামেনি পাল্টাপাল্টি অভিযোগ।

সোমবার, ১০ এপ্রিল, ২০১৭

তিন মাসে ঊনিশ ছবি, সফল হল কয়টি?



২০১৭ সালের তিনটি মাস শেষ হয়ে চতুর্থ মাস শুরু হয়েছে। এই তিন মাসের তের সপ্তাহে বাংলাদেশে মোট ঊনিশটি চলচ্চিত্র মুক্তি পেয়েছে, অর্থ্যাৎ গড়ে প্রতি মাসে প্রায় ছয়টি চলচ্চিত্র। সংখ্যার দিক থেকে ঊনিশটি চলচ্চিত্র একটি ইতিবাচক দিক, কিন্তু চলচ্চিত্র শিল্পের বিবেচনায় এই সংখ্যার চেয়েও গুরুত্বপূর্ণ হল এই ছবিগুলোর মাধ্যমে আয়ের সংখ্যা। দুঃখজনক ব্যাপার হল, আশাব্যঞ্জক কোন কিছু গত তিন মাসে পাওয়া যায়নি।

রবিবার, ১৯ ফেব্রুয়ারী, ২০১৭

ডুব নিষিদ্ধ/স্থগিত বিতর্কঃ প্রকৃত ঘটনা কি?

ডুব - নো বেড অব রোজেস সিনেমায় লেখক জাভেদ হাসান ডুব - নো বেড অব রোজেস সিনেমায় লেখক জাভেদ হাসান চরিত্রে ইরফান খান

মোস্তফা সরয়ার ফারুকীর মুক্তিপ্রতিক্ষিত সিনেমা ডুব - নো বেড অব রোজেস নিয়ে বিতর্কের শুরু হয়েছিল কলকাতার আনন্দবাজারে সংবাদ প্রকাশের পর। হুমায়ূন আহমেদের জীবনী অবলম্বনে ডুব নির্মিত হয়েছে এমন সংবাদের প্রেক্ষিতে প্রথমে গুঞ্জন এবং হুমায়ূন-পত্নী মেহের আফরোজ শাওনের তীব্র প্রতিবাদ ইত্যাদি নিয়ে আলোচনা-সমালোচনা তুঙ্গে উঠেছিল সেসময়। মাঝে কিছুদিন ঠান্ডা থাকার পর গতকাল থেকে আবারও চাঙ্গা হয়ে উঠেছে এই ইস্যু। ডুব মুক্তির ব্যাপারে যৌথ-প্রযোজনার প্রিভিউ কমিটি অনাপত্তি পত্র ইস্যুর একদিন পরেই তথ্য মন্ত্রনালয়ের আদেশে অনাপত্তিপত্র বাতিল করেছে  - এই নিয়ে বেজায় শোরগোল চলছে। কিন্তু এ সকল ঘটনাপ্রবাহের মধ্যে কিছু ঘাপলাও রয়েছে।

শুক্রবার, ১০ ফেব্রুয়ারী, ২০১৭

দ্য হেইটফুল এইট: ৭০ মিমি এবং অন্যান্য



কিল বিল-খ্যাত কুয়েন্টিন টারান্টিনোর অষ্টম চলচ্চিত্র দ্য হেইটফুল এইট মুক্তি পেয়েছিল ২০১৫ সালের ২৫ ডিসেম্বর তারিখে। কুয়েন্টিন টারান্টিনোর ছবি - আলোচনায় থাকার জন্য এই একটি কারণই যথেষ্ঠ ছিল। কিন্তু সেই আলোচনাকে তুঙ্গে তুলে দিয়েছিল যে বিষয়টি তা হল - সিনেমাটি নির্মিত হয়েছে ৭০ মিলিমিটার (৭০ মিমি) ফিল্ম ফরম্যাটে। মুক্তির এক বছর পরে এসে ডিজিটাল ফরম্যাটে সেই ছবি দেখার পর ৭০ মিমি-র মাজেজা বোঝার কোন উপায়ই নেই বলা যায়। যেহেতু, ১৬ মিমি, ৩৫ মিমি কিংবা আসপেক্ট রেশিও সম্পর্কে যৎসামান্য জ্ঞান ছিল, তাই ৭০ মিমি-র মহাত্ম্য বোঝার জন্য কিছু পড়াশোনা করতে হল। দারাশিকো'র ব্লগের পাঠকদের সাথে সদ্য আহরিত জ্ঞান ভাগ করার চেষ্টা করা যায়।

শুক্রবার, ৩ ফেব্রুয়ারী, ২০১৭

সর্বাধিক সিনেমার পরিচালক!

 

উইকিপিডিয়ায় বাংলাদেশি এক পরিচালকের পাতা দেখছিলাম। ভদ্রলোক অনেকগুলো ছবি বানিয়েছেন। মানসম্মত এবং মানহীন দু ক্যাটাগরীতেই।এক ক্যাটাগরীতে কম, অন্যটায় বেশি। দেখতে দেখতেই মাথায় ভাবনার উদয় হল - বাংলাদেশে সর্বাধিক সিনেমার পরিচালক কে? কাজী হায়াত? নাকি মনতাজুর রহমান আকবর? বলিউডে কে? সম্পূর্ণ ভারতে? গোটা বিশ্বে? আগ্রহের পরিতৃপ্তি সম্ভব গুগলের সাহায্যে। দেখা যাক, গুগল কি বলছে।

শুক্রবার, ২৭ জানুয়ারী, ২০১৭

দি (হেলেনা) ডুয়েল



আইএমডিবি-তে রেটিং মাত্র ৫.৭/১০। রোটেন টম্যাটোস বলছে মাত্র ২৪% ফ্রেশ। রজার এবার্টের রিভিউতে চার এর মধ্যে মাত্র দুই। এই দুর্বল রেটিং এর সিনেমা দেখা মানে সময় নষ্ট করা। কিন্তু তারপরও দেখলাম দুটো কারণে। এক, একটা ওয়েস্টার্ন সিনেমা দেখার প্রচন্ড ক্ষুধা বোধ হচ্ছিল এবং দুই, পোস্টারে উডি হ্যারেলসনের উপস্থিতি। উহু, উডি হ্যারেলসন মোটেও আমার প্রিয় অভিনেতা নন। নাউ ইউ সি মি সিনেমার এই অভিনেতাকে পোস্টারে দেখে মনে হয়েছিল - বহুদিন এর সিনেমা দেখিনি, ওয়েস্টার্ন সিনেমায় যখন পেয়েছি - দেখে নিই। সিনেমার নাম দ্য ডুয়েল।

শুক্রবার, ২০ জানুয়ারী, ২০১৭

কৃষ্ণপক্ষ সম্পর্কে যা বলা প্রয়োজন



গুণী অভিনেত্রী মেহের আফরোজ শাওন তার প্রথম চলচ্চিত্রটি নির্মান করতে সক্ষম হয়েছেন। ছবির নাম কৃষ্ণপক্ষ। প্রধান চরিত্রে অভিনয় করেছেন রিয়াজ। তার সাথে আছেন মাহিয়া মাহি। এছাড়াও আছেন তানিয়া আহমেদ এবং আজাদ আবুল কালাম। এরা ছবির গুরুত্বপূর্ণ চরিত্র। অগুরুত্বপূর্ণ চরিত্রের অভিনেতাদের মধ্যে কায়েস চৌধুরী, ফেরদৌস, রফিকুল্লাহ সেলিমের নাম উল্লেখ করা যেতে পারে। ইমপ্রেসের প্রযোজনায় নির্মিত এই চলচ্চিত্রটি মেহের আফরোজ শাওনের প্রথম নির্মিত 'চলচ্চিত্র'। নানা কারণে বড়পর্দায় এই চলচ্চিত্রটি দেখার সুযোগ হয় নি, ছোটপর্দায় দেখার পর কিছু কথা বলার আগ্রহ বোধ থেকে এই পোস্টের অবতারনা।

শুক্রবার, ১৩ জানুয়ারী, ২০১৭

ওয়ার উইচ : চাইল্ড সোলজারের মনস্তত্ত্ব

War Witch rebelle film poster_darashiko.com

চাইল্ড সোলজার বা শিশু সৈনিকদের নিয়ে গত একদশকের সবচে জনপ্রিয় সিনেমার নাম সম্ভবত ব্লাড ডায়মন্ড। এর প্রধান কারণ হল লিওনার্দো ডিক্যাপ্রিও যিনি সিনেমার কেন্দ্রিয় চরিত্রে অভিনয় করেছিলেন। ব্লাড ডায়মন্ড সিনেমায় চাইল্ড সোলজার গুরুত্বপূর্ণ উপাদান হলেও মূল বিষয় ছিল ডায়মন্ড ফলে শিশুসৈনিকদের বিষয়টি পরিপূর্ণভাবে ফুটে উঠে নি। অবশ্য যেটুকু পাওয়া গিয়েছিল সেটিও কম নয়, চাইল্ড সোলজারদের অমানবিক জীবনের একটি দৃশ্য পাওয়া যায় সেখানে। এর চেয়েও ভালোভাবে পাওয়া যায় এরকম কয়েকটি সিনেমা নির্মিত হয়েছে সাম্প্রতিক সময়ে। এদের মধ্যে নেটফ্লিক্স নির্মিত বিস্টস অব নো নেশন বেশি জনপ্রিয়, পাশাপাশি ২০১২ সালে মুক্তিপ্রাপ্ত সিনেমা ওয়ার উইচের নামও বলতে হয়।