I Love You.

মাত্র এই তিনটা শব্দই লেখা ছিল এসএমএস-এ। অন্ততঃ কমপক্ষে এই তিনটা শব্দ যে লেখা ছিল সেটা নিশ্চিত। কিন্তু কপালের ফের, সেই কবে কবি নজরুল আমার এই অবস্থা দিব্যদৃষ্টিতে দেখতে পেয়ে লিখেছিলেন - 'পড়বি তো পর মালির ঘাড়েই', এসএমএস যখন এল মোবাইল তখন আমার হাতে নেই।

নো ওরিস! প্যারেন্টস এর হাতে পড়েনি। ক্লাস ফোরে পড়ুয়া ছোটবোন ফুল ভলিউমে বাংলা সিনেমার গান শুনতে শুনতে গভীর মনযোগের সাথে অ্যাংরি বার্ডস খেলছে, মেসেজের শব্দে তার গান এবং খেলায় বিশাল বাধার সৃষ্টি হয়েছিল। তাই মেসেজ ওপেন করে পড়ে ফেলেছে সে। গতরাতের ঘটনা।

এই খবর জেনেছি আজ দুপুরে, তাও বড়বোনের মুখে - ভাইয়া প্রেম করে বেড়াচ্ছে এবং মেসেজে লেখা আইলাভিউ - এই নিয়ে মুখ টিপে হাসাহাসি, তারপর তরল-কঠিন জেরা, তারপর বিভিন্নখাতে প্রবাহিত করার প্রচেষ্টা থেকে নিবৃত্ত করে, সবশেষে হাত থেকে মোবাইল কেড়ে নেয়ার পরেও সেই মেসেজ পড়া গেল না!

কে মেসেজ দিয়েছে. নাম লেখা ছিল? না।
নাম্বার সেভ করা আছে মোবাইলে? না।
কি লেখা ছিল? আই লাভ ইউ।
আর কিছু লেখা ছিল না? না।
নাম টাম কিছু না? না।
কি নাম্বার? বাংলালিংক।
বাংলালিংক, শিওর? হু।
বাংলালিংক কিভাবে বুঝলে? জিরো ওয়ান নাইন দিয়ে শুরু।
নাম ছিল না? না।
নাম্বার সেভ করা নাই? না।
ডিলিট করছো ক্যান? (চুপ)
মেসেজ ডিলিট করছো ক্যান? .... তোমারে আই লাভ ইউ বলছে ক্যান??? তাই ডিলিট করে দিছি।

 



গান:

প্রেম একবার এসেছিল সরবে
আমার মোবাইল প্রান্তে ...